ঢাকাশুক্রবার , ২৭ আগস্ট ২০২১
  1. ইসলাম
  2. ছোট গল্প
  3. বই
  4. বিজ্ঞান-ও-প্রযুক্তি
  5. বিনোদন
  6. বিশ্বকোষ
  7. ব্যবসা
  8. ভিডিও
  9. ভ্রমণ
  10. মার্কেটিং
  11. মোটিভেশনাল স্পিচ
  12. স্বাস্থ্য বিষয়ক
আজকের সর্বশেষ সবখবর

সুন্দর সম্পর্ক গড়ে তোলার কিছু টিপস

প্রতিবেদক
Yeasin Ahmad
আগস্ট ২৭, ২০২১ ২:৫০ অপরাহ্ণ
Link Copied!

কীভাবে গড়ে তুলবেন, সুন্দর সম্পর্ক

রবি ঠাকুরের একটি উক্তি আছে, “মানুষের সমস্ত প্রকৃতিকে এক মুহূর্তে জাগ্রত করিবার উপায় হল প্রেম” প্রেমের সম্পর্ক মূলত দুজন ব্যক্তিকে আবেগ, ভালোবাসার মাধ্যমে মানসিকভাবে বেঁধে রাখে । সম্পর্কের ভালোবাসা আমাদের যোগ্যতা সম্পর্কে আত্মবিশ্বাসী করে। কিন্তু জীবন চলার পথে আমাদের এমন কিছু সম্পর্কের বন্ধনে জড়িয়ে যাই যে, আপনি চাইলেই যে কোন সম্পর্ক ত্যাগ করতে পারবেন না। কিছু সম্পর্ক আছে যেগুলোতে সুখের বিন্দু পরিমাণ ছিটে ফোটাও নেই। কিন্তু তারপরেও সামাজিক বা দায় বদ্ধতার কারণে অটুট রাখতে হয় সেই সম্পর্কগুলোকে। আজকে আমাদের এই আর্টিকেলে মুলত এমন কিছু টিপস শেয়ার করা হবে, যাতে আমরা সম্পর্কে তিক্ত অভিজ্ঞতা বের হয়ে সম্পর্ক গুলো আরো মধুর করে তুলতে পারি।

১) ইতিবাচক দৃষ্টি ভঙ্গি : নেগেটিভ বিষয়গুলোকে দেখা বাদ দিন। খারাপ দিক খুঁজতে গেলে অসংখ্য খারাপ দিক বের হবেই। বদলে জোর করে হলেও দুজনের সম্পর্কের পজিটিভ দিকে তাকান। জীবনসঙ্গী মানুষটার ভালো ব্যাপারগুলো নিয়ে ভাবুন যেগুলোকে আপনি কখনো ভালোবাসেন।

২) পরিবর্তন আশা করবেন না: মানুষটি বদলে যাবেন বা আপনাদের সম্পর্কের অবস্থা রাতারাতি বদলে যাবে সেটা আশা করবেন না। ধরেই রাখুন যে কিছু পরিবর্তিত হবে না। তাই অবস্থাকে মেনেই অগ্রসর হোন। মন থেকে মেনে নিন।

৩) নিজের একটা সীমারেখা: নিজেকেও কিছু সীমারেখা দিন, যেমন কোন কাজগুলো আপনি করবেন না বা করতে পারবেন না। চেষ্টা করুন নিজের নেগেটিভ ব্যাপারগুলকে এড়িয়ে যেতে।

৪) নিজের দায়িত্ব পালন করুন: সম্পর্কের মাঝে ভালোবাসা থাকুক বা না থাকুক, দায়িত্ব পালনে যেন অবহেলা না হয়। দায়িত্ব পালন করুন নিষ্ঠার সাথে। মাঝে মাঝে এই ব্যাপারটিই সম্পর্কে সুন্দর করে তোলে।

৫) সাহায্য নিতে সংকোচ নয়: নিজের ঘনিষ্ঠ মানুষদের সাহায্য নিন। হতে পারে পরিবারের কেউ, হতে পারে বন্ধু। নিজের কষ্টের কথা ও মনের কথা শেয়ার করুন। তাদের পরামর্শ নিন। অনেকটাই ভালো লাগবে।

৬) ক্ষমা করুন সুখী থাকুন: জীবনসঙ্গীকে ক্ষমা করে দিন, একদম মন থেকে ক্ষমা করে দিন। সবকিছুর জন্যই ক্ষমা করে দিন যেহেতু তাঁকে ছেড়ে আপনি যেতে পারছেন না।

৭) সম্পর্কে সময় দিন: সম্পর্ক যখন খুব বেশী তিক্ত হয়ে যায় তখন কথা বাড়িয়ে লাভ নেই আসলে। বরং সময়কে যেতে দিন নিজের মত। সময়ের সাথে সাথে সবকিছু ঠিক হয়ে যাবে।

৮) বদলে যাওয়া মেনে নিন: আপনাদের সম্পর্কটি এখন এমনই, তিনিও এখন এমনই। এই সত্যটি মেনে নিন। সাথে এটাও মেনে নিন সময়ের সাথে সাথে সবকিছুই বদলে যায়। আজকে যা এমন আছে সেটা আগামীকাল আবার অন্যরকম হয়ে যাবে। তবে সম্পর্ক রাতারাতি মধুর হয়ে উঠবে না, একটা দাগ থেকেই যাবে যতই মধুর হয়ে যাক না কেন। তাই সাবধানে পা ফেলুন।

১০) প্রশংসা করুন: প্রতিদিন ছোটখাটো নানা ভালো কাজে প্রশংসা করুন। অন্যের প্রশংসা বা স্বীকৃতি আমাদের উত্‍সাহিত করা ছাড়াও আমাদের ভালো দিকগুলোর প্রতি যে সঙ্গী মনোযোগী তা প্রমাণ করে।

১১) ধারাবাহিকভাবে একে অপরের প্রতি মর্যাদা প্রদর্শন:
যদি একে অপরের খোঁজ রাখেন, পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করেন এবং ছোট বড় যে কোনো পদক্ষেপে একে অপরের প্রতি বিশ্বাস রাখেন তাহলে তা দীর্ঘস্থায়ী সম্পর্কের লক্ষণ।

“নিয়মিত একে অপরের প্রতি বিশ্বাস স্থাপন সম্পর্কে আন্তরিকতা তৈরি করে এবং একে অপরের কাছে নিরাপদ বলে অনুভব করে।” এমনটাই বলেছেন যুক্তরাষ্ট্রের মনোবিশেষজ্ঞ এবং মহিলা ও এলজিবিটিকিউ ক্ষমতায়ন-বিষয়ক সম্প্রদায়ের প্রতিষ্ঠাতা দেবরাহ ডুলি।

Facebook Comments